ঢাকা ০৬:২০ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

যুব লীগ সভাপতি আব্দুল মজিদ আপেল কে জেলাপরিষদ চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায় সাধারণ জনগন

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদের রেষ কাটতে না কাটতেই শুরু হয়েছে ঠাকুরগাঁও জেলা পরিষদের উপ নির্বাচন।নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তথ্য অনুযায়ী আগামী মে মাসেই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
এদিকে সময় ঘনিয়ে আসার সাথে সাথে ঠাকুরগাঁও জেলা পরিষদের সম্ভাব্য প্রার্থীরা দৌড় ঝাপ শুরু করেছেন। তবে এবার ঠাকুরগাঁও জেলা যুবলীগের সভাপতি আব্দুল মজিদ আপেল কে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায় ঠাকুরগাঁও জেলার জন সাধারণ।

সারেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, চায়ের দোকান,পাড়া মহল্লা,মাঠঘাট,হাটবাজার সর্বত্র সাধারণ মানুষের মাঝে চলছে জেলা পরিষদ নির্বাচন নিয়ে সরগরম আলোচনা। তবে তরুণ নেতা হিসেবে বর্তমান জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে আব্দুল মজিদ আপেল কেই পছন্দ সাধারণ জনগনের। যুবলীগ সভাপতি আবদুল মজিদ আপেল ইতিমধ্যে দলমত নির্বিশেষে সর্বস্তরের মানুষের আস্থার প্রতীক হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে সক্ষম হয়েছেন।

আসন্ন জেলা পরিষদ পরিষদ চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মজিদ আপেল বলেন, আমি দীর্ঘদিন ধরেই রাজনীতির সাথে যুক্ত। আমার রাজনীতি মূলত জনগণকে নিয়ে। আমি বর্তমান সরকারের উন্নয়নের ধারাকে এগিয়ে নিতে ঐক্যবদ্ধভাবে সাধারণ মানুষকে সাথে নিয়ে জেলা পরিষদের চেয়ারে বসে নিরলস ভাবে কাজ করে যাব। সবকিছু ঠিক থাকলে আর ভোটাররা চাইলে জনসাধারণের ভালোবাসায় বিপুল ভোটে আমি বিজয়ী হব ইনশাআল্লাহ।
আবদুল মজিদ আপোল দীপ্ত কন্ঠে বলেন,আমি জনগণের সেবার মধ্যে নিজেকে নিয়োজিত রাখতে চাই সারাজীবন।

ট্যাগস :
জনপ্রিয়

পলাশে এনা-কাভার্ডভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২ আহত ৬

যুব লীগ সভাপতি আব্দুল মজিদ আপেল কে জেলাপরিষদ চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায় সাধারণ জনগন

আপডেট : ০৬:৪১:৫৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদের রেষ কাটতে না কাটতেই শুরু হয়েছে ঠাকুরগাঁও জেলা পরিষদের উপ নির্বাচন।নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তথ্য অনুযায়ী আগামী মে মাসেই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
এদিকে সময় ঘনিয়ে আসার সাথে সাথে ঠাকুরগাঁও জেলা পরিষদের সম্ভাব্য প্রার্থীরা দৌড় ঝাপ শুরু করেছেন। তবে এবার ঠাকুরগাঁও জেলা যুবলীগের সভাপতি আব্দুল মজিদ আপেল কে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায় ঠাকুরগাঁও জেলার জন সাধারণ।

সারেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, চায়ের দোকান,পাড়া মহল্লা,মাঠঘাট,হাটবাজার সর্বত্র সাধারণ মানুষের মাঝে চলছে জেলা পরিষদ নির্বাচন নিয়ে সরগরম আলোচনা। তবে তরুণ নেতা হিসেবে বর্তমান জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে আব্দুল মজিদ আপেল কেই পছন্দ সাধারণ জনগনের। যুবলীগ সভাপতি আবদুল মজিদ আপেল ইতিমধ্যে দলমত নির্বিশেষে সর্বস্তরের মানুষের আস্থার প্রতীক হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে সক্ষম হয়েছেন।

আসন্ন জেলা পরিষদ পরিষদ চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মজিদ আপেল বলেন, আমি দীর্ঘদিন ধরেই রাজনীতির সাথে যুক্ত। আমার রাজনীতি মূলত জনগণকে নিয়ে। আমি বর্তমান সরকারের উন্নয়নের ধারাকে এগিয়ে নিতে ঐক্যবদ্ধভাবে সাধারণ মানুষকে সাথে নিয়ে জেলা পরিষদের চেয়ারে বসে নিরলস ভাবে কাজ করে যাব। সবকিছু ঠিক থাকলে আর ভোটাররা চাইলে জনসাধারণের ভালোবাসায় বিপুল ভোটে আমি বিজয়ী হব ইনশাআল্লাহ।
আবদুল মজিদ আপোল দীপ্ত কন্ঠে বলেন,আমি জনগণের সেবার মধ্যে নিজেকে নিয়োজিত রাখতে চাই সারাজীবন।