ঢাকা ০৬:২৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঠাকুরগাঁওয়ে রাস্তা সংস্কার কাজে হিট স্ট্রোকে নারী শ্রমিকের মৃত্যু

মাহমুদ আহসান হাবিব, ঠাকুরগাঁও ॥

ঠাকুরগাঁওয়ে রাস্তা সংস্কার কাজ করার সময় হিট স্ট্রোকে লতিফা বেগম (৪০) নামে এক নারী শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার (২৯ এপ্রিল) বিকেলে জেলার হরিপুর উপজেলার বকুয়া ইউনিয়নের সিংহাড়ি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। লতিফা বেগম উপজেলার নারগুন গ্রামের মৃত মোকসেদুলের স্ত্রী বলে তথ্য পাওয়া যায়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ৪০ দিনের অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি প্রকল্পের কাজ পান লতিফা বেগমের দেবর ইলিয়াস। সকালে দেবরের পরিবর্তে শ্রমিক হিসেবে অন্যান্য শ্রমিকের সাথে কাজে যোগ দেন লতিফা বেগম। মাটির রাস্তা সংষ্কারে মাটি কাটার কাজ করছিলেন তিনি। এ সময় হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে অন্য শ্রমিকরা তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পথে তিনি মারা যান।

বকুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু তাহের বলেন, ওই নারী শ্রমিক কাজ করার হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়ে যান এবং জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। পরে তাকে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যু হয় তার।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. শামীমুজ্জামান বলেন, অতিরিক্ত গরমে হিট স্ট্রোকের কারণেই ওই নারী শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। হিট স্ট্রোক থেকে বাঁচতে হলে রোদের পিক টাইমগুলো এড়িয়ে চলতে হবে।

হরিপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল লতিফ শেখ বলেন, নারী শ্রমিক লতিফা বেগমের মরদেহ সুরতহাল রিপোর্টের পর হিট স্টোকে মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করছি। তার স্বজনদের কোনো আপত্তি না থাকায় মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ট্যাগস :
জনপ্রিয়

ঠাকুরগাঁওয়ে উপজেলা নির্বাচনকে ঘিরে জেলা আওয়ামীঃ রাজনীতিতে বিভক্তি হওয়ার আশঙ্কা

ঠাকুরগাঁওয়ে রাস্তা সংস্কার কাজে হিট স্ট্রোকে নারী শ্রমিকের মৃত্যু

আপডেট : ১১:৪৬:০৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৪

মাহমুদ আহসান হাবিব, ঠাকুরগাঁও ॥

ঠাকুরগাঁওয়ে রাস্তা সংস্কার কাজ করার সময় হিট স্ট্রোকে লতিফা বেগম (৪০) নামে এক নারী শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার (২৯ এপ্রিল) বিকেলে জেলার হরিপুর উপজেলার বকুয়া ইউনিয়নের সিংহাড়ি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। লতিফা বেগম উপজেলার নারগুন গ্রামের মৃত মোকসেদুলের স্ত্রী বলে তথ্য পাওয়া যায়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ৪০ দিনের অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি প্রকল্পের কাজ পান লতিফা বেগমের দেবর ইলিয়াস। সকালে দেবরের পরিবর্তে শ্রমিক হিসেবে অন্যান্য শ্রমিকের সাথে কাজে যোগ দেন লতিফা বেগম। মাটির রাস্তা সংষ্কারে মাটি কাটার কাজ করছিলেন তিনি। এ সময় হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে অন্য শ্রমিকরা তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পথে তিনি মারা যান।

বকুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু তাহের বলেন, ওই নারী শ্রমিক কাজ করার হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়ে যান এবং জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। পরে তাকে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যু হয় তার।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. শামীমুজ্জামান বলেন, অতিরিক্ত গরমে হিট স্ট্রোকের কারণেই ওই নারী শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। হিট স্ট্রোক থেকে বাঁচতে হলে রোদের পিক টাইমগুলো এড়িয়ে চলতে হবে।

হরিপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল লতিফ শেখ বলেন, নারী শ্রমিক লতিফা বেগমের মরদেহ সুরতহাল রিপোর্টের পর হিট স্টোকে মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করছি। তার স্বজনদের কোনো আপত্তি না থাকায় মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।