ঢাকা ০৭:৩৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঠাকুরগাঁওয়ে মৃৎ শিল্পের ঐহিত্য ফিরিয়ে নারী উন্নয়নে কাজ করছে জয়িতা ফাউন্ডেশন

মাহমুদ আহসান হাবিব, ঠাকুরগাঁও ॥

শিল্পে অনুন্নত দেশের উত্তরের জেলা ঠাকুরগাঁওয়ের পিছিয়ে পড়া নারীদের নানা প্রশিক্ষণের মাধ্যমে অর্থনৈতিক মুক্তি ও সাবলম্বী করতে কাজ করছে জয়িতা ফাউন্ডেশন।

এরই ধারাবাহিকতায় ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার আকচা ইউনিয়নের পাল পাড়া গ্রামের পিছিয়ে পড়া ২৫ জন নারী কুশিলবদের নিয়ে ৫ দিন ব্যপি চলছে মৃৎ শিল্পের প্রশিক্ষণ কর্মশালা।

প্রশিক্ষণের উদ্ভোধনি অনুষ্ঠানে জয়িতা ফাউন্ডেশন এর সক্ষমতা বিনির্মাণ প্রকল্পের পরিচালক ও উপসচিব শেখ মোহাম্মদ রেফাত আলীর সভাপতিত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন জয়িতা ফাউন্ডেশন এর ব্যাবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্রধান প্রশিক্ষক ও জয়িতা ফাউন্ডেশনের কনসালটেন্ট চন্দ্র শেখর সাহা, এসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার সবুজ দাস, ঠাকুরগাঁও কারুপন্য উন্নয়ন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক চন্দনা ঘোষ, সহকারী প্রশিক্ষক স্থানীয় মৃৎশিল্পী গগন পাল।

জয়িতা ফাউন্ডেশনের ব্যাবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান প্লাস্টিকের বিকল্প হিসেবে মৃৎ শিল্পের গুরুত্ব তুলে ধরে বলেন, কালের বিবর্তনে আধুনিকতার ছোঁয়ায় মাটির তৈরি জিনিসপত্রের দিন দিন ব্যবহার কমতে শুরু করেছে। বর্তমান প্রযুক্তির উন্নয়নের ফলে মাটির তৈরি জিনিসের বিকল্প হিসেবে বাজার দখল করে নিয়েছে প্লাাস্টিক, অ্যালুমিনিয়াম, স্টিল ও সিরামিক। প্লাস্টিকের জায়গায় মৃৎ শিল্পটাকে আমরা আবার ফিরিয়ে আনতে চাই। এখানে মৃৎ শিল্পীদের যে পন্যগুলো তৈরী হচ্ছে, জয়িতা ফাউন্ডেশনের অফিসের সেলস সেন্টারে সেগুলোকে আমরা বিক্রি করে দিতে চাই।

ট্যাগস :
জনপ্রিয়

ঠাকুরগাঁওয়ে উপজেলা নির্বাচনকে ঘিরে জেলা আওয়ামীঃ রাজনীতিতে বিভক্তি হওয়ার আশঙ্কা

ঠাকুরগাঁওয়ে মৃৎ শিল্পের ঐহিত্য ফিরিয়ে নারী উন্নয়নে কাজ করছে জয়িতা ফাউন্ডেশন

আপডেট : ০৬:৩৮:২৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ২ মার্চ ২০২৪

মাহমুদ আহসান হাবিব, ঠাকুরগাঁও ॥

শিল্পে অনুন্নত দেশের উত্তরের জেলা ঠাকুরগাঁওয়ের পিছিয়ে পড়া নারীদের নানা প্রশিক্ষণের মাধ্যমে অর্থনৈতিক মুক্তি ও সাবলম্বী করতে কাজ করছে জয়িতা ফাউন্ডেশন।

এরই ধারাবাহিকতায় ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার আকচা ইউনিয়নের পাল পাড়া গ্রামের পিছিয়ে পড়া ২৫ জন নারী কুশিলবদের নিয়ে ৫ দিন ব্যপি চলছে মৃৎ শিল্পের প্রশিক্ষণ কর্মশালা।

প্রশিক্ষণের উদ্ভোধনি অনুষ্ঠানে জয়িতা ফাউন্ডেশন এর সক্ষমতা বিনির্মাণ প্রকল্পের পরিচালক ও উপসচিব শেখ মোহাম্মদ রেফাত আলীর সভাপতিত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন জয়িতা ফাউন্ডেশন এর ব্যাবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্রধান প্রশিক্ষক ও জয়িতা ফাউন্ডেশনের কনসালটেন্ট চন্দ্র শেখর সাহা, এসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার সবুজ দাস, ঠাকুরগাঁও কারুপন্য উন্নয়ন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক চন্দনা ঘোষ, সহকারী প্রশিক্ষক স্থানীয় মৃৎশিল্পী গগন পাল।

জয়িতা ফাউন্ডেশনের ব্যাবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান প্লাস্টিকের বিকল্প হিসেবে মৃৎ শিল্পের গুরুত্ব তুলে ধরে বলেন, কালের বিবর্তনে আধুনিকতার ছোঁয়ায় মাটির তৈরি জিনিসপত্রের দিন দিন ব্যবহার কমতে শুরু করেছে। বর্তমান প্রযুক্তির উন্নয়নের ফলে মাটির তৈরি জিনিসের বিকল্প হিসেবে বাজার দখল করে নিয়েছে প্লাাস্টিক, অ্যালুমিনিয়াম, স্টিল ও সিরামিক। প্লাস্টিকের জায়গায় মৃৎ শিল্পটাকে আমরা আবার ফিরিয়ে আনতে চাই। এখানে মৃৎ শিল্পীদের যে পন্যগুলো তৈরী হচ্ছে, জয়িতা ফাউন্ডেশনের অফিসের সেলস সেন্টারে সেগুলোকে আমরা বিক্রি করে দিতে চাই।